আগামী ২০ ডিসেম্বর চট্টগ্রামে সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী কনভেনশন

প্রকাশ:| শনিবার, ৭ ডিসেম্বর , ২০১৩ সময় ১১:৫০ অপরাহ্ণ

ক্ষমতার মোহে উন্মাতাল একদল মানুষরূপী হায়েনার চরম আক্রোশের শিকার সাধারণ মানুষসাম্প্রদায়িকতা বিরোধী কনভেনশন
প্রেস রিলিজ>>আগামী ২০ ডিসেম্বর চট্টগ্রামে ‘সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী কনভেনশন’ সফল করতে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের প্রতিনিধিত্বশীল সংগঠন-সংগঠকদের সাথে মতবিনিময় সভায় বক্তারা বলেছেন, ক্ষমতার মোহে উন্মাতাল একদল মানুষরূপী হায়েনার চরম আক্রোশের শিকার সাধারণ মানুষ। তথাকথিত গণতন্ত্রের নামে কতিপয় রাজনীতিক এবং তাদের উন্মত্ত দল ঝলসে দিচ্ছে পুরো বাংলাদেশ। গোটা দেশই নরকপুরীতে পরিণত হয়েছে। নৈতিকতার শক্তিকে পুঁজি করে ক্ষমতালোভী রাজনীতিবিদদের বুঝিয়ে দিতে হবে, জনগণই মূল শক্তি। যেখানেই নাশকতা, সেখানেই গড়ে তুলতে হবে প্রতিরোধ। আর প্রতিরোধের জন্যেই আমরা সমবেত হয়েছি।
গতকাল ৬ ডিসেম্বর শুক্রবার চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের ইঞ্জিনিয়ার আবদুল খালেক মিলনায়তনে ‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি পরিষদ’র উদ্যোগে একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি চট্টগ্রাম জেলা উপদেষ্টা ডা. মাহফুজুর রহমানের সভাপতিত্বে ও কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক লেখক-সাংবাদিক শওকত বাঙালির সঞ্চালনায় সূচনা বক্তব্য দেন সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি পরিষদের সদস্য সচিব ও জেলা নির্মূল কমিটির আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট সীমান্ত তালুকদার।
সভায় অন্যদের মধ্যে অভিমত ব্যক্ত করেন জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট চন্দন দাশ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের জেলা কমান্ডার মো. সাহাবউদ্দিন, চবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. সেকান্দর চৌধুরী, শিক্ষক সমিতি চট্টগ্রাম অঞ্চল সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ লকিতুল্লাহ, চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাব সাধারণ সম্পাদক মহসিন চৌধুরী, যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আলহাজ এম. এনামুল হক চৌধুরী, সাবেক কমান্ডার মোজাফফর আহমদ, মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ ইলিয়াছ, ছিদ্দিকুল ইসলাম, অরুণ কুমার সাহা, এ.বি.এম ছিদ্দিকুর রহমান, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য আবৃত্তিশিল্পী রণজিৎ রক্ষিত, সংস্কৃতিসেবী অনুপ সাহা, কবি আশীষ সেন, কবি ইউসুফ মুহাম্মদ, স্বাধীনতা সংগ্রামী এমএ আজিজের পুত্র সাইফুদ্দিন খালেদ বাহার, স্বাধীনতা সংগ্রামী মানিক চৌধুরীর পুত্র দীপংকর চৌধুরী কাজল, স্বাধীনতা সংগ্রামী জাকারিয়া চৌধুরীর পুত্র সাংবাদিক শাহীন চৌধুরী, রাজনীতিক বোরহান উদ্দিন মো. এমএন, শিক্ষক নেতা প্রদীপ কানুনগো, মুহাম্মদ ইদ্রিস আলী, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক প্রফেসর বেনু কুমার দে, ড. মো. নুরুল বাশার, মু. কাজী নূর সোহাগ, মো. আকতার হোসেন, তৌহিদুল ইসলাম, জিয়াউল ইসলাম, আহসানুল কবির, আবৃত্তিশিল্পী ও সংস্কৃতিকর্মী অঞ্চল চৌধুরী, দুলাল দাশ গুপ্ত, অ্যাডভোকেট মিলি চৌধুরী, দেওয়ান মাকসুদ আহমেদ, সুচরিত চৌধুরী টিংকু, সজল দাশ, জগদীশ দেব নাথ, একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির জাতীয় পরিষদ সদস্য মোহাম্মদ জোবায়ের, জেলা নেতা স্বপন সেন, মো. অলিদ চৌধুরী, আবুল হাসনাত মো. বেলাল, লায়ন মো. মহিউদ্দিন সোহেল, নাজমুল আলম খান, মাউসুফ উদ্দিন মাসুম, সাব্বির হোসাইন, রেজোয়ানা রাব্বানী পিয়াল, অমিত নন্দী, কামাল উদ্দিন চৌহানী, প্রকৃতি চৌধুরী ছোটন, নিখিলেশ সরকার রাজ, মো. মইদুল ইসলাম, মো. আবু সিদ্দিক, অভিজিৎ নাথ, রাজন চন্দ্র নাথ, মো. সাইফুল ইসলাম, শেখ মোহাম্মদ সাদেকুল হাদী, বাবুল আচার্য শ্রাবন, রাসেল দে, মু. মহিউদ্দিন তামিম, রাজন শর্মা, নিউটন দাশ, মিছবাহ, সমীর দাশ, মিথুন নাথ, শেখ মহিউদ্দিন বাবু, মো. খালেদ সাইফ উল্যা শামীম, সঞ্জয় শেখর দাশ, মোহাম্মদ রাশীদ, সাজ্জাত হোসেন, সজল দাশ, তানভীর আহমেদ, আবদুর রউফ, মিজানুর রহমান, মুহাম্মদ মইন উদ্দিন তাফিম, মো. সাজ্জাদ কবির তাওহিদ, কানন, এম.এ.এইচ তুষার, স্বপন দাশ, দেওয়ান মাকসুদ আহমেদ, মো. শরিফুল হক, মো. সাজ্জাদ হোসাইন তালুকদার, রিফাতুর রহমান, বেলাল হোসেন, সুকান্ত দেব, কিরণ দাশ, আজিজুর রহমান, এমরানুল হক আজাদ, কামাল প্রমুখ।
সভায় আগামী ২০ ডিসেম্বর চট্টগ্রামে সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী কনভেনশন সফল করতে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের প্রতিনিধিত্বশীল সংগঠন-সংগঠকদের সাথে পৃথকভাবে ও পৃথক সময়ে মতবিনিময় করার সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়।


আরোও সংবাদ