ঈদ স্পেশাল জর্দা রেসিপি

0
100

জর্দা মানেই বিয়ে বাড়ি বা ঈদের দিনের অতি পরিচিত সুস্বাদু ডেজার্ট। অনেকে খেতে পছন্দ করি কিন্তু রান্না করতে জানি না। তাই মন চাইলেও খাওয়া হয়ে উঠে না। তাই আজ রইল সবচেয়ে সহজ পদ্ধতিতে মজাদার জর্দার রেসিপি। জেনে নিন রেসিপিটি…

উপকরন:-
পোলাওয়ের চাল বা চিনি গুড়া চাল – ২ কাপ
পানি- দেড় কাপ
চিনি- ১ কাপ (বেশী মিষ্টি চাইলে বাড়াতে পারেন, তবে মিষ্টি বেশি হলে ভাত শক্ত হয়ে যায় ঠান্ডা হওয়ার পর।)
ঘি-৪ টেবিল চামচ।
দারুচিনি ২টি টুকরা, লবঙ্গ ৫-৬ টি, এলাচি ৫টি
কমলা বা মাল্টার রস ১ কাপ ।
নারিকেল ১/২ কাপ (ইচ্ছা)
লাল- কালো কিসমিস, কাঠ বাদাম, মোরোব্বা ২ টেবিল চামচ করে।
জর্দার রঙ ১/২ চা চামচ
কমলার খোসা কুচি বা zest ১ টেবিল চামচ ।
ছয় কাপ পানি চাল সিদ্ধ করার জন্য

প্রণালী: –
১: প্রথমে চাল ধুয়ে ভিজায় রাখুন আধা ঘন্টা। এবার ছয় কাপ মত পানি, দুটি তেজপাতা, সামান্য লবণ, ১চা চামচ তেল ও জর্দার রঙ চাল চুলায় দিয়ে সিদ্ধ করে নিতে হবে। চাল বেশী সিদ্ধ বা শক্ত যেন না হয় । ৭৫-৮০ % হয়ে গেলে চালনিতে ঢেলে ছেকে নিন। পানি ভাল ভাবে ঝরিয়ে ট্রে তে বিছিয়ে রাখুন যেন বাতাসে পানিটা শুকিয়ে যায়।

২: এখন একটি প্যানে ঘি গরম করে মিডিয়াম আঁচে রাখুন, আস্ত গরম মশলাগুলো দিন। ফুটে উঠলে কিশমিশ, বাদাম, নারিকেল ও মোরাব্বা দিয়ে নেড়ে চিনি, পানি ও কমলার রস দিয়ে নেড়ে দিন। বলক আসলে সিদ্ধ ভাত দিয়ে নেড়ে নেড়ে মিশান সব। এবার ঢেকে দিন চুলার আঁচ মিডিয়াম থেকে কমিয়ে দিন। ২০ মিনিট রান্না করুন।

৩। ২০ মিনিট পর কমলার খোসা কুচি ও ১ টেবিল চামচ ঘি দিয়ে হালকা নেড়ে মিশান। আবার ঢেকে ২০ মিনিট দমে রাখুন। ভাত একদম ফুটে গেলে নামিয়ে বাটিতে নিয়ে কিশমিশ, পেস্তা-বাদাম কুচি, মাওয়া ও ছোট লাল-সাদা মিষ্টি দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

টিপস:-
মাওয়া তৈরিঃ গুঁড়া দুধ ১/২ কাপ + ২ টেবিল চামচ ঘি + ১ টেবিল চামচ চিনি দিয়ে হাতে মাখিয়ে মাইক্রোওভেনে ২৫-৩০ সেকেন্ড বেইক করে নিন । ঠান্ডা হলে ব্লেন্ড করে নিলেই ঝুরঝুরে মাওয়া তৈরী হবে।

** চাল সিদ্ধ করার সময় ১ চা চামচ তেল দিলে ভাত বেশী নরম হবে না এবং ঝরঝরে থাকবে।
** খাওয়ার রং যদি dry হয় তাহলে চাল সিদ্ধের সময় পানিতে দিতে হবে। liquid হলে পরে দিতে হবে।
** ভাতে মিষ্টি বেশি হলে ভাত ঠান্ডা হওয়ার পর শক্ত হয়ে যায়। তাই পরিমান মত চিনি দিন।
** ভাত সিদ্ধ করার পর পানি ঝরিয়ে থালায় নিয়ে বাতাসে ছড়িয়ে রাখবেন যেন একটু পানি শুকিয়ে যায়।