খালেদা জিয়া জনগণ ও গণতন্ত্রের জন্য কারাগারে

0
28

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, অনেকেই বলেন এটি স্বৈরাচার সরকার। আসলে এরা স্বৈরাচার নয়, স্বৈরাচারের বাবা, ফ্যাসিবাদী। স্বৈরাচার হলে তাদের ন্যূনতম একটা কিছু থাকে। আইয়ুব খান ছিল স্বৈরাচার, ডিক্টেটর। তখনও এই অবস্থা ছিল না। এটি তো ফ্যাসিবাদ। শুক্রবার সুপ্রিম কোর্ট বার এসোসিয়েশন মিলনায়তনে এক আলোচনাসভা ও দোয়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। বিএনপি’র ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ৫৫তম জন্মদিন উপলক্ষে স্বেচ্ছাসেবক দল এ আলোচনা সভার আয়োজন করে।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশে মির্জা ফখরুল বলেন, হতাশ হওয়ার কিছু নেই।

নেলসন ম্যাণ্ডেলা ২৭ বছর জেলে ছিলেন। আর সু চি ১০ বছর গৃহবন্দি ছিলেন। শেষ পর্যন্ত গণতন্ত্রের জয় হয়েছে। আমাদের নেত্রী খালেদা জিয়া কারাগারে। নিজের জন্য নয়, তিনি জনগণ ও গণতন্ত্রের জন্য কারাগারে।

তিনি আরও বলেন, যখন আমাদের মধ্যে হতাশা, ভয়ভীতি কাজ করছে তখন সুদূর থেকে তারেক রহমান লালমনিরহাটে ফোন করে বলছেন, কেমন আছেন, ভালো আছেন তো। সাহস হারাবেন না, আমরা সবাই আছি। তারেক রহমান প্রায় আমাদের তৃণমূলের নেতাদের সঙ্গে কথা বলেন। সেই জন্য বলছি, এত হতাশা ও অন্ধকারে মধ্যে আশার আলো দেখতে পাই তারেক রহমানের নেতৃত্বের মধ্যে। এই নেতৃত্ব আমাদেরকে মুক্তি দেবে।
স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবুর সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, যুগ্ম মহাসচিব হাবিব উন নবী খান সোহেল, স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক আবদুল কাদের ভূঁইয়া জুয়েল প্রমূখ।