গরুর মাংসের কোরমার রেসিপি

0
59

কোরমা নামটির সাথেই যেন জড়িয়ে আছে একটা শাহী গন্ধ। সাধারণত মুরগির কোরমাটাই বেশী খাওয়া হয়, তবে গরুর মাংস দিয়ে কোরমা রাঁধলেও কিন্তু দারুণ লাগে খেতে। আজ জেনে নেই গরুর মাংসের কোরমার রেসিপি।

উপকরণ:
– ১ কেজি গরুর মাংস
– ১ কাপ টক দই
– আধা কাপ পেঁয়াজবাটা
– ১ টেবিল-চামচ রসুন, আদা, জিরাবাটা
– ৩, ৪টি ফালি করা কাঁচামরিচ
– ১ চা-চামচ গরম মসলাগুঁড়া
– ৫টি এলাচ
– ৩ টুকরা দারুচিনি
– ২টি তেজপাতা
– ৪, ৫টি গোলমরিচ
– ৩টি লবঙ্গ
– তেল পরিমাণমতো
– মিহি পেঁয়াজকুচি আধা কাপ
– ৩ টেবিল-চামচ ঘি
– ১ টেবিল-চামচ চিনি
– ৩, ৪টি আস্ত কাঁচামরিচ

পদ্ধতি:
– মাংস একটু বড় বড় টুকরা করে কেটে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিন।

– দই, পেঁয়াজবাটা, আদা-রসুনবাটা, জিরাবাটা, সব গরম মসলা, লবণ, কাঁচামরিচ-ফালি এবং ১ কাপের ৪ ভাগের ১ ভাগ তেল দিয়ে মাংস মাখিয়ে দুই ঘণ্টা রেখে দিন।

– তারপর মাংস ঢেকে ভালো মত কষিয়ে রান্না করুন। কোনো পানি দেবেন না। মাংসের পানি সব শুকিয়ে আসলে অল্প অল্প পানি দিয়ে মাংস সিদ্ধ করুন। লক্ষ রাখুন পুরে যেন না যায়।

– এবার অন্য একটি হাঁড়িতে আধা কাপ তেল গরম করে, পেঁয়াজকুচি দিয়ে বেরেস্তা করে তুলে নিন। এই গরম তেলেই সিদ্ধ করা মাংসগুলো দিয়ে দিন।

– ভাজতে থাকুন। লবণ চেখে নিন। কোরমাতে বেশি লবণ হলে ভালো লাগেনা। লবণ একটু কম কম হতে হবে।

– ঝোলের জন্য অল্প পানি দিন।

– ফুটে উঠলে পেঁয়াজ বেরেস্তা, চিনি, ঘি ও আস্ত ৩, ৪টি কাঁচামরিচ দিয়ে অল্প আঁচে রেখে দিন। ঝোল তেলের উপর উঠলে নামিয়ে নিন। তবে খুব বেশি পানি টানিয়ে ফেলবেন না। একটু ঝোল রাখলে খেতে ভালো লাগে। ইচ্ছে হলে সামান্য লেবুর রস দেওয়া যেতে পারে।

– পরিবেশন করুন পোলাও, পরোটা, নান কিংবা ভাতের সঙ্গে।