তিস্তার পানির ন্যায্য হিস্যা অবশ্যই রাজনীতিক ব্যাপার – একিউএম বদরুদ্দোজা

0
12

বিকল্পধারা সভাপতি অধ্যাপক ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী বলেছেন, তিস্তার পানির ন্যায্য হিস্যা অবশ্যই রাজনীতিক ব্যাপার। রাজনীতির কারণেই ভারত তিস্তার পানি আটকে রেখেছে।

মঙ্গলবার বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবে জাতীয় গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট (এনডিএফ) আয়োজিত ‘তিস্তাসহ ভারত-বাংলাদেশের আন্তঃসীমান্ত নদীসমূহের পানির ন্যায্য হিস্যা আদায়ের উপায়’ শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনায় সাবেক এই রাষ্ট্রপতি এসব কথা বলেন।

এ সময় তিনি ভেদাভেদ বাদ দিয়ে শুধুমাত্র তিস্তা ইস্যুতে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে আন্দোলনে নামার আহবান জানান।

বি. চৌধুরী বলেন, ‘আসুন আমরা সবাই সব কিছু বাদ দিয়ে দেশের কথা, জনগণের কথা চিন্তা করে তিস্তা ইস্যুতে ঐক্যবদ্ধ হই। আন্দোলন শুরু করি।’

তিনি বলেন, ‘ভারত কেন আমাদের পানি দিতে চায় না- কারণ তারা নিজেদের মস্ত বড় দেশ মনে করে। সেই সঙ্গে আমাদের দেশকে তারা তাদের তাবেদার মনে করে। এজন্যই তারা আমাদের তোয়াক্কা করে না। তারা চায় পানির অভাবে বাংলাদেশ শুকিয়ে মরে যাক। যেভাবে তারা সীমান্তে নির্বিচারে পাখির মত বাংলাদেশিদের হত্যা করছে।’

বিকল্পধারা সভাপতি বলেন, ‘পার্শ্ববর্তী দেশের সঙ্গে সমস্যা হলে এ সরকার প্রতিবাদ করতে পারে না। তারা বলে ভারতের নির্বাচন সম্পন্ন হলে ব্যাপারটি দেখা যাবে। এটি চরম হাস্যকর, জনগণের সঙ্গে প্রতারণা।’

ভারতের কাছ থেকে দাবি আদায়ে সাহসী, দূরদৃষ্টি সম্পন্ন হতে সরকার ও সংসদকে সক্রিয় ভূমিকা পালনের আহ্বান জানান তিনি।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এরশাদের সমালোচনা করে বি. চৌধুরী বলেন, ‘পদত্যাগ করার জন্য তিনি (এরশাদ) যোগ্য ব্যক্তি খুঁজে পাচ্ছেন না। ভাবটা এমন যেন তিনি একাই সিংহ পুরুষ, বাকিরা সব চুয়া।’

তিনি বলেন, এ সরকার জনগণের ভোটে নির্বাচিত হলে শক্তিশালী হতেন। আর শক্তিশালী সরকারের কথা অবশ্যই ভারত শুনতে বাধ্য হতো।