নতুন তিন আইফোন

0
61

বছরের অন্যতম বড় ইভেন্টে নতুন তিন আইফোন আনার ঘোষণা দিয়েছে অ্যাপল।

আইফোন ১০আরের নতুন সংস্করণ আইফোন ১১ পাওয়া যাবে ৬৯৯ ডলারে (৫৮ হাজার ৭১৬ টাকা)। আইফোন ১১ প্রোয়ের দাম শুরু হয়েছে ৯৯৯ ডলার (৮৩ হাজার ৯১৬ টাকা) থেকে। আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্সের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১০৯৯ ডলার (৯২ হাজার ৩১৬ টাকা)।

শুক্রবার থেকে ফোন তিনটির প্রি-অর্ডার শুরু হবে। বাজারে আসবে ২০ সেপ্টেম্বর।

গ্লাস ডিজাইনের আইফোন ১১ পাওয়া যাবে বেগুনি, সাদা, সবুজ, হলুদ , কালো ও লাল রঙে। ম্যাট ফিনিশিংয়ের আইফোন ১১ প্রো ও আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স পাওয়া যাবে সুবজ, ধুসর, রুপালি ও সোনালি রঙে।

প্রতিটি আইফোনে আছে নতুন এ১৩ বায়োনিক প্রসেসর। অ্যাপলের নিজস্ব তৈরি প্রসেসরটি এখন পর্যন্ত স্মার্টফোনের জন্য নির্মিত সবচেয়ে দ্রুতগতির সিপিইউ।

এছাড়াও, আইফোনগুলো সাপোর্ট করবে ১৮ ওয়াটের ফাস্ট চার্জিং, কিউআই ওয়্যারলেস চার্জিং ও রিভার্স ওয়্যারলেস চার্জিং।

আইফোন ১১

ফোনটিতে আছে ৬ দশমিক ১ ইঞ্চির লিকুইড রেটিনা ডিসপ্লে। ফোনটির পেছনের আছে ১২ মেগাপিক্সেলের ওয়াইড ক্যামেরা ও ২এক্স অপটিকাল জুমসহ ১২ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা ওয়াইড ক্যামেরা।

সামনে আছে ১২ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা। এতে স্লোমশনে সেলফি ভিডিও করার ফিচার এনেছে অ্যাপল।

ব্যাটারির শক্তি ৩১১০ এমএএইচ। ফোনটি ৪ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি স্টোরেজ, ৪ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজ এবং ৪ জিবি র‌্যাম ও ২৫৬ জিবি স্টোরেজে পাওয়া যাবে।

আইফোন ১১ প্রো

ফোনটিতে আছে ওএলইডি প্যানেল সমৃদ্ধ ৫ দশমিক ৮ ইঞ্চির ডিসপ্লে।

ফোনটিতে আছে এর ১২ মেগাপিক্সেলের ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, ১২ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স ও ১২ মেগাপিক্সেলের টেলিফোটো লেন্স। এর সামনেও রয়েছে ১২ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা।

ব্যাটারির শক্তি ৩১৯০ এমএএইচ। ফোনটি ৬ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি স্টোরেজ,এবং ৬ জিবি র‌্যাম ও ২৫৬ জিবি এবং ৬ জিবি র‌্যাম ও ৫১২ জিবি স্টোরেজ সংস্করণে পাওয়া যাবে।

আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স

যারা উন্নত প্রযুক্তির ফোন চান তাদের কথা ভেবে আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স তৈরি করেছে অ্যাপল। ওএলইডি প্যানেলে তৈরি ৬ দশমিক ৫ ইঞ্চির ফোনটিতে আছে সুপার রেটিনা এক্সডিআর ডিসপ্লে। আইফোন ১১ প্রো আর আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্সের ক্যামেরা ফিচার, র‌্যাম ও স্টোরেজ একই। ফোনটির ব্যাটারির শক্তি ৩৫০০ এমএএইচ।