নিজ উদ্যোগে নাদিয়া

0
25

টিভি নাটকের জনপ্রিয় অভিনেত্রী নাদিয়া আহমেদ। অভিনেত্রী পরিচয়ের বাইরে নাদিয়া বর্তমানে অভিনয় শিল্পী সংঘের কার্যনির্বাহী সদস্য। এই অভিনেত্রী নিজের কাজের পাশাপাশি তার ওপর শিল্পীদের অর্পিত দায়িত্বও সঠিকভাবে পালন করার জন্য অঙ্গীকারবদ্ধ বলে জানান। এরইমধ্যে নিজের উদ্যোগেই বেশ কিছু কাজ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি। তার ভাষ্য, আমাদের শিল্পী ও নির্মাতাদের মধ্যে কল টাইম নিয়ে সমস্যা সৃষ্টি হয়। অনেক নির্মাতার অভিযোগ শিল্পীরা সঠিক সময়ে শুটিং স্পটে আসে না। একইরকম ভাবে শিল্পীদের অভিযোগ সঠিক সময়ে শুটিং শেষ না করায় পরের দিন অনেকেই স্পটে যেতে দেরি করেন। এছাড়া শিল্পী ও নির্মাতাদের মধ্যে সম্মানি নিয়েও জটিলতা রয়েছে।
এই বিষয়গুলোর একটা সমাধানের চেষ্টা করছি। কারণ আমি নিজেও একজন শিল্পী। অন্য একজন শিল্পীর সমস্যা মানেই সেটি আমারও সমস্যা বলে আমি মনে করি। এদিকে এই অভিনেত্রী এখনো ঈদের ছুটিতে আছেন। ঈদে তার অভিনীত ‘মফিজের লাইফ স্টাইল’ নাটকটি দর্শকের মধ্যে দারুণ সাড়া ফেলে। বিভিন্ন চ্যানেলে প্রচার হচ্ছে তার একাধিক ধারাবাহিক নাটক। উল্ল্যেখযোগ্য নাটকগুলো হলো মিজানুর রহমান আরিয়ানের ‘গল্পগুলো আমাদের’, ডিকে আকাশের ‘ক্যাট হাউজ’, জাবির রাসেলের ‘বিড়ম্বনা’, তুষার খানের ‘বহে সমান্তরাল’, ফজলুর রহমানের ‘উল্টো পথে উল্টো রথে’, অঞ্জন আইচের ‘অর্ধেক সত্য’ ও জুয়েল শরীফের ‘বড় বাড়ি’ শিরোনমের ধারাবাহিকগুলো। প্রতিটি ধারাবাহিকে ভিন্ন ভিন্ন চিরত্রে অভিনয় করছেন এ অভিনেত্রী।
অভিনয়ের বাইরে তিনি নাচেও সমাদৃত। টিভি চ্যানেলগুলোর বাইরে স্টেজেও নিয়মিত নাচের অনুষ্ঠানে দেখা যায় তাকে। তবে নাচের অনুষ্ঠান নিয়ে টিভি চ্যানেলগুলো বেশ উদাসীন বলে মন্তব্য করেন নাদিয়া। নাদিয়া বলেন, নাচের মূল ধারার শিল্পীদের দিয়ে টিভি চ্যানেলগুলো অনুষ্ঠান করে না। এছাড়া প্রায় চ্যানেলের প্রযোজকদের কাছে শুনতে হয় নাচের অনুষ্ঠানের জন্য বাজেট নেই। অথচ যেকোনো অনুষ্ঠান আজকাল শুরু হয় নাচ দিয়ে। আবার শেষও হয় নাচের মধ্য দিয়ে। এভাবে নাচের শিল্পীদের অবমূল্যায়ন করলে নৃত্যশিল্পী তার জৌলুস হারাবে।