বাংলাদেশ আজ উন্নয়নশীল দেশের পথিকৃৎ

0
32

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বাংলাদেশ আজ উন্নয়নশীল দেশের পথিকৃৎ। সার্কভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশে গড় আয়ু সবচেয়ে বেশি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে কারণে এসব সম্ভব হয়েছে।

রোববার (৯ জুন) বিকেলে পতেঙ্গা সমুদ্রসৈকতে বাংলাদেশ বেতার আয়োজিত তথ্য মন্ত্রণালয়ের শিশু ও নারী উন্নয়নে সচেতনতামূলক যোগাযোগ কার্যক্রমের আওতায় বহিরাঙ্গন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘মূল্যবোধ, মেধা ও মননের সমন্বয়ে কেবল একটি উন্নত জাতি গড়ে উঠতে পারে।’

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বাংলাদেশে আঠারো কোটি মানুষ যার মধ্যে অর্ধেকেই নারী ও শিশু। নারী ও কন্যা শিশুদের এখনও সামাজিকভাবে অবজ্ঞা করা হয়। নারীরাও পুরুষের পাশাপাশি উন্নয়নের সমান তালে অবদান রাখতে পারে। দেশের উন্নয়নের স্বার্থে নারীদের পুরুষের সহযোদ্ধা হিসেবে সবক্ষেত্রে অংশগ্রহণের সুযোগ করে দিতে হবে। সব প্রতিবন্ধকতা দূর করে নারীরা নিজেদের মেধা ও যোগ্যতা দিয়ে নিজেদের অবস্থান তৈরি করে নিয়েছে। এখন সময় এসেছে নারীর প্রতি সবধরনের সহিংসতা বন্ধ করতে হবে।

তিনি বলেন, ১৯৯৬ সালের আগে বাংলাদেশের কেউ চিন্তাই করেনি নারীরা তাদের কর্মক্ষেত্রে এতটা প্রভাব বিস্তার করতে পারবে। এটা সম্ভব হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দক্ষ নেতৃত্বের জন্য। আজ নারীরা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল, নারীর জেলা প্রশাসক, নারীরা পুলিশ সুপার, নারীরা পাইলট, নারীরা বিমান, নৌ ও সেনাবাহিনীসহ সবক্ষেত্রে দক্ষতার সঙ্গে নেতৃত্ব দিচ্ছে।

তথ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও জাতীয় প্রকল্প পরিচালক মোহাম্মদ আজহারুল হক বলেন, বর্তমান সরকার শিশু ও নারী উন্নয়নে ব্যাপক পরিকল্পনা নিয়েছে এবং এর বাস্তবায়নের ফলে দেশের মাতৃমৃত্যু ‍ও শিশুমৃত্যুর হার অনেক কমেছে।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপ-প্রচার সম্পাদক মোহাম্মদ আমিনুল ইসলাম আমিন বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বলেন, আজকের বাংলাদেশ বিশ্বের বুকে অবাক বিস্ময় হয়ে আছে যার সুযোগ্য নেতৃত্বে তিনি বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা। বাংলাদেশ দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলেছে যা বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে।

বিশেষ অতিথি চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান এম জহিরুল আলম দোভাষ নারী ও শিশু উন্নয়নে সরকারের বিভিন্ন উদ্যোগের কথা তুলে ধরেন।

মুখ্য আলোচক চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, আজকের শিশু আগামী দিনের নাগরিক। ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত বাংলাদেশ গড়তে এবং টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে নারীকে পুরুষের সঙ্গে সমানতালে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। তাদের যোগ্য নাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে শিক্ষা ও পুষ্টিতে নজর দিতে হবে।

সভাপতির বক্তব্যে বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক নারায়ণ চন্দ্র শীল বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বপ্ন দেখেন, স্বপ্ন দেখান এবং এর বাস্তবায়ন করেন।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম বেতারের আঞ্চলিক পরিচালক এসএম আবুল হোসেন।

আলোচনা শেষে ছিল ব্যান্ডদল সাসটেইন ও জনপ্রিয় শিল্পীদের পরিবেশনা।