বাকশালের আলামত সুস্পষ্ট

0
5

সমাজকল্যাণমন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলীর বক্তব্যে বাকশালের আলামত সুস্পষ্ট হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান ও সাবেক মন্ত্রী আবদুল্লাহ আল নোমান।

তিনি বলেন, সরকার ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করার জন্য বাকশাল প্রতিষ্ঠার দিকে এগোচ্ছে। গণমাধ্যম নিয়ে সমাজকল্যাণমন্ত্রীর বক্তব্যে বাকশালের আলামত সুষ্পষ্ট হয়েছে।
নোমান
নোমান বলেন, মহসীন আলী বলেছেন আইন করে গণমাধমের স্বাধীনতা খর্ব করা হবে। আমরা সুষ্পষ্টভাবে বলতে চাই বর্তমান সংসদ এবং সরকার অবৈধ, তাই অবৈধ সংসদে আইন পাশ করার কোনো অধিকার নেই। আইন করে গণমাধমের স্বাধীনতা খর্ব করার চেষ্টা করা হলে আমরা কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করব।

মঙ্গলবার বিকেলে জাতীয়তাবাদী শ্রমিকদল চট্টগ্রাম ওয়াসা শাখার আয়োজনে এক বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। ‘দেশব্যাপী গুম, খুন ও গুপ্ত হত্যা’র প্রতিবাদে নগরীর ওয়াসা চত্বরে এ বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

সমাবেশে অবিলম্বে র‌্যাব বিলুপ্ত করার দাবি জানিয়ে নোমান বলেন, আমাদের দাবির সঙ্গে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থাসহ অনেক সংস্থা র‌্যাব বিলুপ্ত করার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

তিনি বলেন, র‌্যাব এখন বাংলাদেশের মানুষের কাছে গুম ও গুপ্ত হত্যার মূর্ত প্রতীকে পরিণত হয়েছে। র‌্যাবের কার্যক্রম প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে পড়েছে। র‌্যাবের অভ্যন্তরে সরকার ছাত্রলীগ ক্যাডারদের অনুপ্রবেশ ঘটিয়ে এ বাহিনীকে বিরোধী দল নিশ্চিহ্ন করার হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করছে।

আবদুল্লাহ আল নোমান বলেন, ইলিয়াছ আলী, চৌধুরী আলমসহ হাজার হাজার বিএনপি নেতাকর্মীকে গুম করে বিচার বহির্ভূতভাবে হত্যা করা হয়েছে। এমনকি দাফন কাফনের জন্য তাদের লাশ পর্যন্ত ফেরত দেওয়া হয়নি। বিএনপি ক্ষমতায় আসলে বিশেষ ট্রাইব্যুনাল গঠনের মাধ্যমে বিচার বহির্ভূত এসব হত্যাকাণ্ডের বিচার করবে।

ওয়াসা জাতীয়তাবাদী শ্রমিকদলের সভাপতি আবুল কালামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে প্রধান বক্তা ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দীন।

বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-শ্রম বিষয়ক সম্পাদক এ. এম. নাজিম উদ্দীন, কেন্দ্রীয় শ্রমিকদলের যুগ্ন-সম্পাদক শেখ নুরুল্লাহ বাহার, সাংগাঠনিক সম্পাদক শ. ম. জামাল, সাংবাদিক জাহিদুল করিম কচি প্রমুখ।