বাফুফে মাহফুজা আক্তার কিরণের বিরুদ্ধে মামলা হবে: সিটি মেয়র নাছির

0
2

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা’র নামে কটুক্তিকারী বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন কর্মকর্তা মাহফুজা আক্তার কিরন এর শাস্তির দাবীতে আজ (১৪ মার্চ) বিকাল ৩টায় চট্টগ্রাম এম.এ.আজিজ ষ্টেডিয়াম চত্ত্বরে এক মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ আয়োজিত হয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য প্রদান করেন আলহাজ্জ্ব আ.জ.ম. নাছির উদ্দীন, মাননীয় মেয়র, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এবং সভাপতি, বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংগঠক পরিষদ। বক্তব্য রাখেন অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ফুটবল এসোসিয়েশনের মহাসচিব তরফদার মোহাম্মদ রুহুল আমিন, বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংগঠক পরিষদের সিনিয়র সহ-সভাপতি সিরাজউদ্দিন মো. আলমগীর, বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি ও প্রেস ক্লাব প্রেসিডেন্ট আলহাজ্জ্ব আলী আব্বাস, যুগ্ম সম্পাদক নজরুল ইসলাম লেদু, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি মোজাম্মেল হক, ফুটবল সম্পাদক মোহাম্মদ ইউসুফ, সিটি কর্পোরেশন কাউন্সিলর গিয়াস উদ্দিন, দিদারুল আলম মাসুম, হাসান মুরাদ বিপ্লব। এছাড়াও জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা, ক্রীড়া সংগঠক, কোচ, শিক্ষার্থী, সাংবাদিকসহ সর্বস্তরের ক্রীড়ামোদি জনগন উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি আ.জ.ম. নাছির উদ্দিন তাঁর বক্তব্যে বলেন, দীর্ঘদিন ধরে বাংলাদেশের ফুটবলকে কলুষিত করে চলেছেন দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তা মাহফুজা আক্তার কিরন। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের ক্রীড়াবান্ধব প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নামে কটুক্তি করে সীমাহীন দু:সাহস দেখিয়েছে এই কিরন। অতিসত্ত্বর বাংলাদেশ ফুটবলের সকল প্রকার পদ-পদবী থেকে বহিস্কার করে সর্বোচ্চ শাস্তির কাঠগড়ায় দাড় করতে হবে কিরনকে। বাফুফে বর্তমান নির্বাহী কমিটিতে ২জন সংসদ সদস্য ও কেন্দ্রিয় যুব লীগের সদস্যও রয়েছেন তাঁদেরকে এ ব্যাপারে জরুরী পদক্ষেপ গ্রহণের আহ্বান জানান আ.জ.ম. নাছির। বাফুফে সভাপতিসহ অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ এ বিষয়ে নিস্কৃয় থাকায় ক্ষোভ প্রকাশ করে তিনি বলেন, অবিলম্বে আপনারা কিরনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিন, অন্যথায় কিরনের মদদদাতা হিসেবে চিহ্নিত করে বাংলাদেশের ক্রীড়াঙ্গন আপনাদের বিরুদ্ধে সর্বশক্তি নিয়ে রুখে দাড়াবে। আগামী সোমবার চট্টগ্রাম থেকে কিরনের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করার ঘোষনার পাশাপাশি বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংগঠক পরিষদের পক্ষ থেকে বিক্ষোভ সভা আয়োজন এবং প্রতিটি বিভাগীয় শহরে নুন্যতম ১টি করে মামলা করে এই দুর্নীতিবাজ ফুটবলের কলঙ্কখ্যাত কর্মকর্তাকে আইনের কাঠগড়ায় দাড় করানোর দিক নির্দেশনা প্রদান করেন বাংলাদেশ ক্রীড়াঙ্গনের এই শীর্ষস্থানীয় কর্মকর্তা।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ফুটবল এসোসিয়েশনের মহাসচিব তরফদার মোহাম্মদ রুহুল আমিন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটুক্তি করার মতো দু:সাহস দেখানো অসাধু ফুটবল কর্মকর্তা কিরন এর সর্বোচ্চ শাস্তি দাবীসহ বাংলাদেশের ফুটবলের সকল প্রকার পদ-পদবী থেকে তাকে বহিস্কার করার জোর দাবী জানান। তিনি কিরনের বক্তব্যে বাফুফের রহস্যজনক নীরবতার কঠোর সমালোচনা করেন।

বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংগঠক পরিষদের সিনিয়র সহ-সভাপতি সিরাজউদ্দিন মো. আলমগীর এবং বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি ও প্রেস ক্লাব প্রেসিডেন্ট আলহাজ্জ্ব আলী আব্বাস বলেন ক্রীড়াবান্ধব প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা’র নামে কটুক্তিকারী কিরনের সর্বোচ্চ শাস্তি না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাবে চট্টগ্রামসহ দেশের ক্রীড়াঙ্গন। দুর্নীতিবাজ এই কর্মকর্তার প্রশ্নবিদ্ধ কর্মকান্ড কলুষিত হয়েছে বাংলাদেশ ক্রীড়াঙ্গন। অচিরেই তাকে সকল প্রকার ক্রীড়া কর্মকান্ড থেকে বহিস্কার করতে হবে এবং আজীবনের জন্য নিষিদ্ধ ঘোষনা করতে হবে।

সম্পূর্ণ ষ্টেডিয়ামব্যাপী বিপূল সংখ্যক ক্রীড়ামোদির উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত এই মানববন্ধন এবং বিক্ষোভ সমাবেশ শেষে মাহফুজা আক্তার কিরনের কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়।