স্বামীর সঙ্গে সিনেমায় রাজি নন বিদ্যা

0
24

ভারতীয় চলচ্চিত্র জগতে অনন্য এক অভিনেত্রী বিদ্যা বালান। ভার্সেটাইল অভিনয়শিল্পী হিসেবেই মানুষ জানে তাকে।

‘পরিণতি’ ছবিতে তাকে দেখা গিয়েছিল নির্ভেজাল, লাজুক বাঙালি নারীর রূপে। আবার ‘ডার্টি পিকচার’ নামক ছবিতে বিদ্যা নিজেকে উপস্থাপন করেছেন একেবারে বিপরীত এক রূপে।

বলিউড এ জনপ্রিয় অভিনেত্রীর ছবি মানেই ব্যবসা সফল। তাকে সিনেমায় নিতে আগ্রহ প্রকাশ করেন বলি প্রযোজকরা।

সঙ্গত কারণেই নিজের সিনেমায় বিদ্যাকে অভিনয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন তার স্বামী সিদ্ধার্থ রায় কাপুর।

বেশ কয়েকটি বলি সিনেমা প্রযোজনা করেছেন সিদ্ধার্থ।

তবে স্বামীর এ প্রস্তাবকে নাকচ করে দিয়েছেন বিদ্যা। সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, স্বামী সিদ্ধার্থের প্রযোজিত কোনো ছবিতে কাজ করবেন না তিনি।

বিদ্যার এমন সিদ্ধান্তে অবাক হন বলিমহলের অনেকে। এ নিয়ে চলে বেশ গুঞ্জন।

সম্প্রতি বিষয়টি খোলাসা করেছেন বিদ্যা বালান।

তিনি বলেন, ‘আমি চাই না প্রযোজক, পরিচালকের সঙ্গে কাজের জায়গায় আমার মতবিরোধ হোক, আর সেটি প্রকাশ্যে আসুক। এ বিষয়ে সিদ্ধার্থের সঙ্গে কোনো ঝগড়া আমি ঠিকভাবে করতেও পারব না। ব্যক্তিগতজীবনে আমি সিদ্ধার্থের সঙ্গে যেমন ঝগড়া করি, তেমনই আমিই সেটি শেষ করি।’

তবে সিদ্ধার্থের সঙ্গে কাজ না করার আরও একটি বিশেষ কারণ জানিয়েছেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘সিনেমায় কাজ করার পারিশ্রমিক নিয়ে আমি সিদ্ধার্থের সঙ্গে দর কষাকষি করতে রাজি নই। এতে মন কষাকষি হয়ে যাবে, যা আমাদের দাম্পত্য জীবনে প্রভাব ফেলবে।’

এর পর তিনি মজার ছলে বলেন, ‘দেখা যাবে সিদ্ধার্থ আমার পারিশ্রমিক যা নির্ধারণ করবে আমি তার ১০ গুণ বেশি চাইব।’

প্রসঙ্গত ২০১২ সালে বলিউডের প্রযোজক সিদ্ধার্থ রায় কাপুরের সঙ্গে মালাবদল করেন বিদ্যা বালান। দক্ষিণী ও পাঞ্জাবি দুই রীতি মেনেই বিয়ে হয়েছিল তাদের।

বর্তমানে রূপালী পর্দায় নিয়মিত নন বিদ্যা। তবে সম্প্রতি মুক্তিপ্রাপ্ত ‘মিশন মঙ্গল’ ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। ছবিটি বক্স অফিসে ২০০ কোটি টাকারও বেশি ব্যবসা করে ফেলেছে ইতিমধ্যে।